ঢাকা   বৃহস্পতিবার ০২ এপ্রিল ২০২০ | ১৯ চৈত্র ১৪২৬ বঙ্গাব্দ
Image Not Found!

যশোরে সরিষা ক্ষেতে বেড়েছে মধু চাষ

Logo Missing
প্রকাশিত: 12:07:55 am, 2020-01-11 |  দেখা হয়েছে: 12 বার।

অনলাইন ডেস্ক::যশোরে একই জমিতে বাণিজ্যিকভাবে সরিষা ও মধু চাষ করে লাভবান হচ্ছেন চাষিরা। সরিষা ক্ষেত থেকে মধু সংগ্রহ করায় ক্ষেতে সরিষার ফলনও বেড়েছে। অল্প খরচে এ চাষ করতে পারায় দিন দিন মধু চাষের দিকে ঝুঁকছে এ অঞ্চলের কৃষক। লাভজনক হওয়ায় ভবিষ্যতে এ জেলায় সরিষার আবাদ আরও বাড়ার আশা কৃষি বিভাগের।

কৃষি সম্প্রসারণ অধিদফতর সূত্র মতে, জেলার আট উপজেলায় চলতি মৌসুমে ১২ হাজার ৬০ হেক্টর জমিতে সরিষার আবাদ হয়েছে। গত মৌসুমে ৯ হাজার ৭৭৫ হেক্টর জমিতে চাষ হয়। যার মধ্যে এবার ১ হাজার ২৬৮ হেক্টর জমিতে বক্স বসিয়ে মৌচাষ করা হচ্ছে। এ বছর জেলায় ৯৭৯টি বক্সে সরিষার ফুল থেকে অন্তত চার হাজার কেজি মধুর জোগান মিলবে। যা গত বছর মধু উৎপাদন হয়েছিল ৩ হাজার ৬১২ কেজি।

সদর উপজেলার হামিদপুর মাঠের মৌচাষি আসমত আলী জানান, চলতি মৌসুমে বারি-১৪ সরিষা দেড় বিঘা জমিতে চাষ করেছি। জমির পাশে ৪৫টি মৌচাষের বক্স বসিয়ে এ পর্যন্ত ২৫ কেজি মধু পেয়েছি। আশা করছি আরও ১ মাস সরিষা ফুলের মধু সংগ্রহ করা যাবে। এ সময়ে অন্তত ১০-১৫ কেজি মধু পাব। হামিদপুর গ্রামের কৃষক আবু তালেব বলেন, সরিষা চাষের সঙ্গে মাঠে মাঠে মধু সংগ্রহ ধুম পড়েছে। অধিকাংশ সরিষা ক্ষেতের মাঠের পাশের মৌ চাষের এমন বক্স স্থাপন করা হয়েছে।

বক্সে থাকা লাখ লাখ মৌমাছি সরিষা ফুলে উড়ে মধু সংগ্রহ করছে। এতে সরিষা ফুলের পরাগায়নে সহায়তা হচ্ছে। আর সরিষার উৎপাদন বাড়ছে। জেলা কৃষি সম্প্রসারণ অধিদফতরের অতিরিক্ত উপপরিচালক সুশান্ত কুমার তরফদার বলেন, জেলায় গত বছরের চেয়ে চলতি মৌসুমে সরিষার চাষ বৃদ্ধি পেয়েছে। একই জমিতে সরিষা ও মধু চাষ করলে সরিষার ফলন বাড়ে ১৫ থেকে ২০ শতাংশ। তাই সরিষার পাশাপাশি মধু চাষে কৃষকদের উদ্বুদ্ধ করা হচ্ছে।

কৃষি সম্প্রসারণ অধিদফতর যশোর অঞ্চলের অতিরিক্ত পরিচালক মোহাম্মদ আলী জানান, সরিষা ক্ষেতে মৌ চাষ করলে পরাগায়ন ভালো হয়। এজন্য ২০ শতাংশ ফলন বাড়ে। একই সঙ্গে মধুর চাহিদাও পূরণ হয়। উন্নত প্রযুক্তি ব্যবহার করায় সরিষা ক্ষেতে মৌ চাষ বাড়ছে। সেজন্য মৌ বক্সসহ আধুনিক যন্ত্রপাতি সরবরাহ করে মৌ চাষ করার উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে।